ওশিয়ানিয়া মহাদেশের দেশ কয়টি 2023

ওশিয়ানিয়া মহাদেশের দেশ কয়টি: বিশ্বের সাতটি মহাদেশের মধ্যে ওশিয়ানিয়ার মহাদেশ আয়তনের বিচারে সবার শেষে রয়েছে। ওশিয়ানিয়া কথাটির বাংলা অর্থ হল ‘মহাসাগরীয়‘। এই মহাদেশ টি প্রশান্ত মহাসাগরের মধ্যবর্তী অঞ্চলে কিছু দ্বীপসমূহ নিয়ে গঠিত। ওশান শব্দটি থেকে ওশিয়ানিয়ার কথাটির উৎপত্তি, এই মহাদেশের নাম অনেক সময় অস্ট্রেলিয়া বলা হয়ে থাকে। কারণ অস্ট্রেলিয়া হলো এই মহাদেশের সবচেয়ে বড় দেশ। ওশিয়ানিয়া মহাদেশে মোট 14 টি স্বাধীন দেশ রয়েছে। যে দেশ গুলির নাম নিচের তালিকায় দেওয়া হল।

আজকের এই নিবন্ধে, ওশিয়ানিয়া মহাদেশের দেশসমূহ, ওশেনিয়া মহাদেশের দেশগুলোর নাম ও রাজধানী, ওশেনিয়া মহাদেশের আয়তন কত, ওশেনিয়া মহাদেশের ক্ষুদ্রতম দেশ, ওশেনিয়া মহাদেশের বৃহত্তম দেশ, ওশেনিয়া মহাদেশের সবচেয়ে জনবহুল দেশ, ওশেনিয়া মহাদেশের সবচেয়ে জনবিরল দেশ ইত্যাদি বিষয় আলোচনা করব।

ওশিয়ানিয়া মহাদেশের সংক্ষিপ্ত বিবরণ

মহাদেশওশিয়ানিয়া
আয়তন8,525,989 কিমি²
জনসংখ্যা4 কোটি 44 লক্ষ
দেশ14 টি
জিডিপি62316 পার ক্যাপিটা
ধর্মখ্রিস্টান
ভাষা30 টি

দক্ষিণ ও মধ্য প্রশান্ত মহাসাগরের সমস্ত দেশগুলিকে নিয়ে ওশিয়ানিয়া নিয়ে গঠিত। এই মহাদেশের প্রায় প্রত্যেকটি দেশে দ্বীপপুঞ্জ নিয়ে গঠিত, এই মহাদেশ মোট 14 টি স্বাধীন রাষ্ট্র নিয়ে গঠিত। প্রায় 30 টি ভিন্ন ভাষা রয়েছে তবে এখানকার প্রধান ভাষা ইংরেজি। আয়তনে এটি পৃথিবীর সবচেয়ে ছোট মহাদেশ ।

ওশিয়ানিয়া মানচিত্র

ওশিয়ানিয়া মানচিত্র, ওশিয়ানিয়া মহাদেশের দেশ কয়টি 2023

ওশিয়ানিয়া মহাদেশের দেশ কয়টি 2023

মোট 14 টি স্বাধীন রাষ্ট্র রয়েছে ওশিয়ানিয়া মহাদেশের যে গুলির নাম নিজের তালিকায় দেওয়া হল,

নংদেশরাজধানী
1.অস্ট্রেলিয়াক্যানবেরা
2.কিরিবাসতারাওয়া
3.টুভালুফুনাফুতি
4.টোঙ্গানুকুয়ালোফা
5.নাউরুইয়ারেন
6.নিউজিল্যান্ডওয়েলিংটন
7.পাপুয়া নিউগিনিপোর্ট মোর্সবি
8.পালাউমেলিকিওক
9.ফিজিসুভা
10.ভানুয়াটুপোর্ট ভিলা
11.মাইক্রোনেশিয়া যুক্তরাজ্যপালিকির
12.মার্শাল দ্বীপপুঞ্জমাজুরো
13.সলোমন দ্বীপপুঞ্জহোনিয়ারা
14.সামোয়াআপিয়া

ওশিয়ানিয়া মহাদেশের আয়তন কত

ওশিয়ানিয়া মহাদেশের মোট আয়তন 8,525,989 বর্গ কিলোমিটার। আয়তনের বিচারে পৃথিবীর সমস্ত মহাদেশ গুলির মধ্যে শেষ স্থানে রয়েছে ওশিয়ানিয়া। পৃথিবীর সবচেয়ে বড় মহাদেশ হলো এশিয়া, দ্বিতীয় স্থানে আফ্রিকা রয়েছে।

ওশিয়ানিয়া মহাদেশের ক্ষুদ্রতম দেশ

নাউরু- ওশিয়ানিয়া মহাদেশের সবচেয়ে ক্ষুদ্রতম দেশ হলো নাউরু, এটি একটি দ্বীপ প্রশান্ত মহাসাগরে অবস্থিত যার। এই দেশের মোট আয়তন 21 বর্গ কিলোমিটার, আয়তনের বিচারে সারা পৃথিবীর মধ্যে দেশটির স্থান 193 তম। মোট জনসংখ্যা প্রায় 13 হাজার এই দেশের জিডিপি পার ক্যাপিটা 9995$, জনসংখ্যার বিচারে এটি পৃথিবীর 227 তম দেশ।

ওশিয়ানিয়া মহাদেশের বৃহত্তম দেশ

অস্ট্রেলিয়া- অস্ট্রেলিয়া ওশিয়ানিয়া মহাদেশের বৃহত্তম রাষ্ট্র, অস্ট্রেলিয়ার মোট আয়তন 76,92,028 বর্গ কিলোমিটার। এছাড়া অস্ট্রেলিয়া বিশ্বের ষষ্ঠ বৃহত্তম রাষ্ট্র। এই দেশের প্রধান ভাষা ইংলিশ, রাজধানী ক্যানবেরা এবং এই দেশের প্রায় 50% এর বেশি মানুষ খ্রিস্টান ধর্ম পালন করে। অর্থনৈতিকভাবে দেশটি অত্যন্ত সাবলম্বী, অস্ট্রেলিয়ার জিডিপি পার্ক ক্যাপিটা 55492$।

ওশিয়ানিয়া মহাদেশের সবচেয়ে জনবহুল দেশ

অস্ট্রেলিয়া- আয়তনের সঙ্গে অস্ট্রেলিয়া ওশিয়ানিয়া মহাদেশের সবচেয়ে জনবহুল দেশ, এই দেশের মোট জনসংখ্যা প্রায় 2 কোটি 60 লক্ষ। জনসংখ্যায় পৃথিবীর মধ্যে অস্ট্রেলিয়া 53 নম্বর স্থানে রয়েছে। অস্ট্রেলিয়ায় অধিকাংশ জনসংখ্যা খ্রিস্টান ধর্ম পালন করলেও প্রায় 31 শতাংশ মানুষ রয়েছে যাদের কোন ধর্ম নেই।

ওশিয়ানিয়া মহাদেশের সবচেয়ে জনবিরল দেশ

টুভালু- ওশিয়ানিয়া মহাদেশের সবচেয়ে জনবিরল দেশ হলো টুভালু, এই দেশের মোট জনসংখ্যা 11 হাজার। এই দেশের মোট আয়তন 26 বর্গ কিলোমিটার, আয়তনের এদেশটি পৃথিবীর 192 তম স্থানে রয়েছে। 1978 সালে দেশটি ইংল্যান্ডের থেকে স্বাধীনতা লাভ করে। হাওয়াই দ্বীপপুঞ্জ ও অস্ট্রেলিয়ার মাঝখানে এই দ্বীপটি অবস্থিত।

এই ধরনের আন্তর্জাতিক গুরুত্বপূর্ণ তথ্যের জন্য আমাদের ওয়েবসাইট, ফেসবুক পেজ, টুইটার পেজ, ইন্সটাগ্রাম ইত্যাদি প্লাটফর্মে ফলো করতে পারেন। ধন্যবাদ।

FAQ: ওশিয়ানিয়া মহাদেশের দেশ কয়টি

ওশিয়ানিয়া মহাদেশের প্রধান নদীর নাম কি?

ফ্লিন্ডার্স, ভিক্টোরিয়া ইত্যাদি হলো এই মহাদেশের অন্যতম প্রধান নদী।

ওশিয়ানিয়া মহাদেশ কবে গঠিত হলো?

1950 এর দশকে এই অঞ্চলকে ওশিয়ানিয়া মহাদেশের অন্তর্গত করা হয় এর পূর্বে এই অঞ্চলকে অস্ট্রেলিয়া নামে অভিহিত করা হতো।

অস্ট্রেলিয়া কোথায় অবস্থিত?

ভারত মহাসাগর ও প্রশান্ত মহাসাগরের মাঝখানে, আন্টার্কটিকার উত্তরে অস্ট্রেলিয়া দেশটি অবস্থিত।

Leave a Reply